শনিবার, ১৩ জুলাই ২০২৪, ০২:৪৫ পূর্বাহ্ন

এআই’র নিরাপত্তা নিয়ে পুরোপুরি নিশ্চিত হয়নি : জো বাইডেন

রিপোটারের নাম
প্রকাশের সময় : শনিবার, ১৫ এপ্রিল, ২০২৩

ওয়াশিংটননিউজ,  ঢাকা, শনিবার, ১৫ এপ্রিল ২০২৩: “আমার মতে, প্রযুক্তি কোম্পানিগুলোর কিছু দায়িত্ব আছে। তা হলো, নিজেদের পণ্য বাজারে ছাড়ার আগে নিশ্চিত করা যে এগুলো নিরাপদ।”চ্যাটজিপিটি বাজারে আসার পর থেকে কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা ব্যবস্থা নিয়ে আগ্রহ এক নতুন স্তরে পৌঁছেছে। মানুষের মতো প্রতিক্রিয়া দেওয়া চ্যাটবটটি চালুর পর থেকে বেশ কিছু প্রযুক্তি জায়ান্ট ও কোম্পানি এর সমান্তরাল আরও কিছু অ্যাপ এনেছে। এসব নিয়েই সতর্ক করলেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন।

বাইডেনের প্রত্যাশা, বিভিন্ন প্রযুক্তি কোম্পানি যেন এই বিষয়টি নিশ্চিত করে যে তাদের কোনো পণ্য বাজারে চালুর আগে তা ব্যবহারের জন্য নিরাপদ। কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা ব্যবস্থার ‘ঝুঁকি ও সম্ভাবনা’ নিয়ে আলোচনার জন্য বাইডেন নিজের বিভিন্ন বিজ্ঞান ও প্রযুক্তিবিষয়ক উপদেষ্টার সঙ্গে বৈঠক করেন। যেখানে গুগল ও মাইক্রোসফটের শিক্ষাবিদ ও নির্বাহীরাও উপস্থিত ছিলেন বলে প্রতিবেদনে উল্লেখ করেছে রয়টার্স।

বৈঠকে ইতালিতে চ্যাটজিপিটি’র ওপর নিষেধাজ্ঞার মতো সিদ্ধান্ত না এলেও এআই’র নিরাপত্তা নিয়ে পুরোপুরি নিশ্চিত হতে দেখা যায়নি বাইডেনকে। যখন তাকে জিজ্ঞেস করা হয়, এআই বিপজ্জনক কি না, তার জবাবে তিনি বলেন, “এটা এখনও দেখা বাকি, এমন হতেও পারে।”“আমার মতে, প্রযুক্তি কোম্পানিগুলোর কিছু দায়িত্ব আছে। তা হলো, নিজেদের পণ্য বাজারে ছাড়ার আগে নিশ্চিত করা যে এগুলো নিরাপদ। তবে, রোগ ও জলবায়ু পরিবর্তনের বিভিন্ন জটিল চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় এটি সহায়ক হতে পারে।”

“তবে আমাদের সমাজ, অর্থনীতি ও জাতীয় নিরাপত্তায় এর সম্ভাব্য ঝুঁকির বিষয়টিও তুলে ধরতে হবে।” – যোগ করেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট।হোয়াইট হাউজ জানিয়েছে, প্রেসিডেন্ট এই সুযোগ কাজে লাগিয়ে ‘দায়িত্বশীল উদ্ভাবন ও উপযুক্ত সুরক্ষা ব্যবস্থা নিশ্চিত করার অধিকার ও নিরাপত্তা রক্ষার গুরুত্বের’ বিষয়টি নিয়েও আলোচনা করেন।

পাশাপাশি, অনলাইনে শিশু প্রাইভেসি সুরক্ষায় নতুন আইন পাস নিয়ে মার্কিন কংগ্রেসে নিজের পূর্ববর্তী বক্তব্যগুলো নিয়েও কথা বলেন তিনি।এই বৈঠকে কোনো নীতিমালা প্রণয়ন বা বড় পরিবর্তন আনার পরিকল্পনা সম্ভবত হয়নি বলে প্রতিবেদনে উল্লেখ করেছে প্রযুক্তিবিষয়ক সাইট এনগ্যাজেট।গবেষণা সংস্থা ‘স্টানফোর্ড ইনস্টিটিউট ফর হিউম্যান সেন্টারড আর্টিফিসিয়াল ইন্টেলিজেন্স’-এর পরিচালক রাসেল ওয়াল্ড বলেন, প্রেসিডেন্ট ‘এআই’র প্রতি মনযোগ বাড়িয়ে এই বিষয়ে একটি জাতীয় সংলাপের মঞ্চ তৈরি করেছেন’।

গত বছর বাইডেন প্রশাসন ‘এআই বিল অফ রাইটস’ নামে একটি পরিকল্পনা প্রকাশ করেছে। আর এটি এআই ও অন্যান্য স্বয়ংক্রিয় ব্যবস্থার নকশা ও স্থাপনা এমনভাবে নির্দেশনা দেওয়ার উদ্দেশ্যে তৈরি, যা ‘কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তার যুগে মার্কিন নাগরিকদের’ সুরক্ষা দেবে বলে প্রতিবেদনে উল্লেখ করেছে এনগ্যাজেট।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ